খালেদা জিয়ার জামিন পরে, আগে ওয়ারেন্ট তামিলের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

'ভুয়া' জন্মদিন পালন ও মুক্তিযুদ্ধকে 'কলঙ্কিত' করার অভিযোগে মানহানির পৃথক দুই মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন চেয়ে করা আবেদনের ওপর কোনো আদেশ না দিয়ে তা নথিভুক্ত করা হয়েছে। বরং দুই মামলায় খালেদার বিরুদ্ধে আগে জারি করা গ্রেপ্তারি পরোয়ানা (ওয়ারেন্ট) আগে কার্যকর করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

একইসঙ্গে এ বিষয়ে শুনানির জন্য আগামী ৫ জুলাই পরবর্তী দিন ধার্য করা হয়েছে। এখনো মামলা দুটিতে গ্রেপ্তার না দেখানোর কারণে আপাতদৃষ্টিতে তাঁর কারমুক্তির বিষয়টি ঝুলে গেল।

গতকাল বৃহস্পতিবার মামলাদুটিতে খালেদার জামিন আবেদন করার পরিপ্রেক্ষিতে আদেশের জন্য দিন ধার্য ছিল। রাজধানীর বকশিবাজারে কারা অধিদপ্তরের প্যারেড মাঠে নির্মিত বিশেষ এজলাসে শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে পৃথক মহানগর হাকিম পর্যায়ক্রমে শুনানি গ্রহণ করেন।

'ভুয়া' জন্মদিন পালনের অভিযোগ আনা মামলায় বিচারক খুরশীদ আলম ও মুক্তিযুদ্ধকে 'কলঙ্কিত' করার মামলায় বিচারক আহসান হাবীব শুনানি গ্রহণ করেন। বিচারকদ্বয় দুই মামলায় খালেদাকে গ্রেপ্তার (শ্যোন অ্যারেস্ট) দেখাতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে রাষ্ট্রপক্ষকে নির্দেশ দেন। একইসঙ্গে পরবর্তী দিন ধার্য করেন। 

আদালতে খালেদার পক্ষে তাঁর প্য্যানেল আইনজীবী মাসুদ আহমেদ তালুকদার মামলা দুটির শুনানিতে বলেন, 'ম্যাডাম গত ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে কারাগারে। এ মামলা দুটিতে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হওয়ার পর পুলিশ পরোয়ানা তামিল করেনি। এটা তাদের ব্যর্থতা। আজ দুই মামলায় খালেদার জামিন বিষয়ে আদেশের জন্য দিন ধার্য রয়েছে। সার্বিক পর্যালোচনায় জামিন দেওয়া হোক।'