পাওনা টাকা চাওয়ায় কান কেটে দেওয়া হলো কৃষকের

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে খড় বিক্রির পাওনা টাকা চাওয়ায় তিন ব্যবসায়ী মিলে ফরিদুল ইসলাম (২৫) নামের এক কৃষকের কান কেটে দিয়েছে। গুরুতর আহত অবস্থায় ওই কৃষককে সিরাজগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।  শুক্রবার সন্ধ্যায় উপজেলার বারুহাঁস ইউনিয়নের বিনসাড়া বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে। 

পুলিশ ও এলকাবাসীরা জানায়, উপজেলার শিবপুর গ্রামের কৃষক ফরিদুল ইসলাম গত বোরো মৌসুমে বিনসাড়া এলাকার  খড় (গো-খাদ্য) ব্যবসায়ী জামাল হোসেন , ইব্রাহিম হোসেন ও আউয়াল আলীর কাছে ২৫ হাজার টাকার খড় বিক্রি করেন। তখন ওই খড় ব্যবসায়ীরা তাকে বায়না বাবদ ১১ হাজার টাকা প্রদান করেন এবং বাকি টাকা খড় নিয়ে যাওয়ার সময় দেওয়ার কথা বলেন। পরে বাজার নতুন খড় আসায় খড়ের দাম কমে যায়। এর ফলে ওই খড় ব্যবসায়ীরা ফরিদুলের বকেয়া টাকা না দিয়ে উল্টো বায়নার ১১ হাজার টাকা ফেরত চায়। ফরিদুল এতে রাজি না হয়ে তার পাওয়া টাকা দাবি করেন। এ নিয়ে তাদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। শুক্রবার বিকেলে ফরিদুলকে বিনসাড়া বাজারে পেয়ে একটি ঘরে আটকে রেখে বেধড়ক মারধর করে ওই তিন খড় ব্যবসায়ী। এক পর্যায়ে তারা ধারালো ছুরি দিয়ে ওই কৃষকের কান কেটে দেয়। পরে স্থানীয়রা তাকে মুমূর্ষ অবস্থায় উদ্ধার করে তাড়াশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। 

তাড়াশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডা. আসিফ মাহমুদ জানান, সেখানে তার অবস্থার অবনতি হওয়ায় রাতে সিরাজগঞ্জ সদর জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।   

তাড়াশ থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান জানান, আহত কৃষককে চিকিৎসা নিতে বলা হয়েছে। পরে মামলা হলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।