জেমস আর শিল্পা শেঠি হাসছেন

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

জেমস হাসছেন, এমন ছবি খুব একটা দেখা যায় না। জনসমক্ষে জেমসের হাসিমুখের ছবি দেখতে পাওয়া যেন অমাবস্যার চাঁদ। মঞ্চে উঠলে তিনি যতটা কাছের, মঞ্চ ছাড়তেই ততটা দূরের তারা। আজ মঙ্গলবার দুপুরে হঠাৎ ফেসবুকে জেমসের হাসিমুখের ছবি পাওয়া গেল। ছবিগুলো পোস্ট করেছেন নির্মাতা গাজী শুভ্র। জানা গেছে, এক যুগ আগে মুক্তি পাওয়া বলিউডের সিনেমা ‘লাইফ ইন আ...মেট্রো’র শুটিংয়ের সময় জেমস আর শিল্পা শেঠিকে একসঙ্গে দেখা গেছে। তখন শুটিংয়ের ফাঁকে তাঁরা আড্ডায় মেতে ওঠেন। এ সময় সঙ্গে ছিলেন নির্মাতা গাজী শুভ্র। তিনি বলেন, ‘পুরোনো অ্যালবাম ঘাঁটতে গিয়ে ছবিগুলো খুঁজে পেলাম। এক যুগ আগের সেই ছবিগুলো অনেক কিছু মনে করিয়ে দেয়। হাস্যোজ্জ্বল জেমস ভাইয়ের চমৎকার কিছু মুহূর্ত ফেসবুকের বন্ধুদের সঙ্গে শেয়ার করেছি। সেদিনের সেই আড্ডার মুহূর্ত অসাধারণ ছিল।’‘লাইফ ইন আ...মেট্রো’ ছবির শুটিংয়ের ফাঁকে জেমস, শিল্পা শেঠি ও গাজী শুভ্র। ছবি: সংগৃহীতঅনুরাগ বসু পরিচালিত ‘লাইফ ইন আ...মেট্রো’ ছবিতে গান গাওয়ার পাশাপাশি জেমসকে অভিনয় করতে দেখা গেছে। ২০০৭ সালে মুক্তি পাওয়া এই ছবিতে জেমসের গান আর পর্দায় উপস্থিতি দেখে মুগ্ধ হন বাংলাদেশ ও ভারতের অসংখ্য ভক্ত। তারও বছরখানেক আগে ‘গ্যাংস্টার’ ছবিতে জেমসের গাওয়া হিন্দি গান ‘ভিগি ভিগি’ দারুণ জনপ্রিয়তা পায়।

জেমসের হাসিমুখের ছবি দেখে অনেকে অবাক হয়েছেন। তাহলে জেমস হাসেন না? জেমস সব সময় চুপচাপ থাকেন? জেমস প্রথম আলোকে বলেন, ‘মোটেও তেমনটা না। আমি ছিলাম এক্সট্রোভার্ট (বহির্মুখী), ভীষণ দুরন্তপনা করেছি ছেলেবেলায়। তবে একা থাকতে পছন্দ করি। তখন হয়তো নিজের মতো ভাবি, ভাবতে ভালো লাগে। আমি নিজের মতো করে কাজ করতে পছন্দ করি। বাড়তি আড্ডা দেওয়ার প্রয়োজন মনে করি না।’‘লাইফ ইন আ...মেট্রো’ ছবির শুটিংয়ে ফাঁকে গাজী শুভ্র, কঙ্গনা রনৌত ও জেমস। ছবি: সংগৃহীতজনসমক্ষে জেমসকে মাঝেমধ্যে হাসতে দেখা যায়। এই তো কদিন আগেও ঢাকার বাইরের একটি বিমানবন্দরে হাসিমুখে দেখা যায় তাঁকে। ঢাকার বাইরের একটি কনসার্ট শেষে ফেরার পথে বিমানবন্দরে তিনি হাসিমুখে ধরা দেন বাংলাদেশের জনপ্রিয় গায়িকা আঁখি আলমগীরের সঙ্গে। জেমস এখন স্টেজ শো নিয়ে ভীষণ ব্যস্ত সময় পার করছেন।