একাদশ সংসদে উত্থাপিত প্রথম বিল পরিবেশ মন্ত্রীর

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

একাদশ জাতীয় সংসদে প্রথম বিলটি উত্থাপন করেছেন পরিবেশ বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন। রবিবার রাতে সংসদ অধিবেশনে উত্থাপিত বিলটি পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে ১৫ দিনের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দেওয়ার জন্য বিলটি পরিবেশ বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে পাঠানো হয়েছে।

ডেপুটি স্পিকার অ্যাডভোকেট মো. ফজলে রাব্বী মিয়া সভাপতিত্বে অধিবেশনে কৃষির জন্য অত্যন্ত প্রয়োজনীয় ‘টপ সয়েল’ রক্ষাসহ ইটভাটাজনিত পরিবেশ দূষণ নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে ‘ইট প্রস্তুত ও ভাটা স্থাপন (নিয়ন্ত্রণ) (সংশোধন) বিল-২০১৯’ নামের এই বিলটি উত্থাপন করা হয়। বিলের বিধান লংঘনজনিত অপরাধের জন্য কারাদণ্ড ও অর্থদণ্ডের বিধানের প্রস্তাব করা হয়েছে। প্রস্তাবিত বিধান লঙ্ঘনজনিত অপরাধে সর্বোচ্চ এক বছর কারাদণ্ড ও ৫ লাখ টাকা অর্থদণ্ড বা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত করার বিধান রাখা হয়েছে।

বিলে বিদ্যমান আইনের কয়েকটি ধারায় প্রয়োজনীয় সংশোধনী এবং কয়েকটি বিধান বিলুপ্তির প্রস্তাব করা হয়েছে। বিলে লাইসেন্স এবং অনুমোদিত ইটভাটা ছাড়া ইট প্রস্তুত নিষিদ্ধের বিধান রাখা হয়েছে। আর ইটভাটার ক্ষেত্রে সরকার গেজেট প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে যে কোনো ইটভাটায় ছিদ্রযুক্ত ইট প্রস্তুতের নির্দেশনা জারির বিধানেরও প্রস্তাব করা হয়েছে। এ ছাড়া ইটভাটা স্থাপনে বিধি-নিষেধ জারির বিধানেরও উল্লেখ করা হয়েছে।

বিলে পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমোদন সংক্রান্ত জটিলতা নিরসনে বিদ্যমান আইনের কোনো কোনো ধারা বিলুপ্ত করার প্রস্তাব করা হয়। পাশাপাশি সময় সময় জারি করা রপ্তানি নীতি অনুসরণ ছাড়া ইট রপ্তানি করা যাবে না বলে বিলে উল্লেখ করা হয়েছে। এ ছাড়া বিলে লাইসেন্স বাতিল বা স্থগিতের প্রস্তাব করা হয়।