পরিবেশদূষণ বন্ধে ৮৮ হাজার ৫শ কোটি রূপি ভর্তুকি দেবে ভারত সরকার

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

 পরিবেশদূষণ কমাতে বিদ্যুৎ কেন্দ্রগুলোকে ১২শ ৪০ কোটি ডলার বা ৮৮ হাজার ৫শ কোটি রূপি বরাদ্দের প্রস্তাব দিয়েছে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার। বিশেষ ধরনের দূষণ প্রতিরোধী যন্ত্রপাতি বসানো সহ স্থানীয়ভাবে ইলেকট্রিক যানবাহন নির্মাণের অবকাঠামো স্থাপনে এই ভর্তুকি দেয়ার প্রস্তাব করা হয়েছে। গত শুক্রবার দেশটির সরকার এক বিবৃতিতে এই তথ্য জানায়। 

দেশটির অর্থ মন্ত্রণালয়ের ওই বিবৃতিতে বলা হয়, সিংহভাগ বরাদ্দ কয়লাভিত্তিক বৃহৎ বিদ্যুৎকেন্দ্রের সালফারযুক্ত ধোঁয়ার পরিমাণ কমিয়ে আনতে ব্যয় করা হবে। এইখাতে ৮৩ হাজার ৫শ কোটি রূপি ব্যয় করা হবে। বাকি অর্থ দিয়ে ২০২৫ সাল নাগাদ ভারতের ৭০টি শহরে ইলেকট্রিক যানবাহন নির্মাণ ও চলাচলের উপযোগী অবকাঠামো তৈরি করা হবে। অর্থ মন্ত্রণালয় তাদের নিজস্ব অর্থায়ন কমিশনের কাছে এই প্রস্তাব জমা দিয়েছে।


 
এদিকে এমন সময় এই প্রস্তাব দেয়া হলো যখন ভারতের বিদ্যুৎশিল্পে একটি সংকট বিরাজ করছে। বিশেষ করে, এই খাতের শিল্প সংস্থাগুলোকে সরকারি ঋণ পেতে তাদের উৎপাদন কাঠামোকে পুন:বিন্যস্ত করতে হচ্ছে। এই নিয়ে তাদের সঙ্গে সরকারি ব্যাংকগুলোর রেষারেষিও তৈরি হয়েছে। চলতি মাসে অ্যাসোচ্যাম-গ্রান্ট থর্টন প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এই চিত্র উঠে আসে। এরপরেই দেশটির বৃহৎ দুটি বেসরকারি উৎপাদক রিলায়েন্স পাওয়ার এবং আদানি পাওয়ার সরকারি ভর্তুকি এবং অর্থ সহায়তা পাওয়ার লক্ষ্যে তদ্বির শুরু করে।

সাম্প্রতিক সময়ে, ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার ভয়াবহ দূষণের কারণে সৃষ্ট ধোঁয়াশা বন্ধ করতে দেশটির বেসরকারি বিদ্যুৎ উৎপাদকদের জন্য একটি মানদ- নির্ধারণ করে। বিদ্যুৎকেন্দ্রগুলো থেকে উৎপন্ন বিষাক্ত গ্যাস ও সালফার ভারতজুড়ে ফুসফুসের ক্যান্সার, এসিড বৃষ্টি এবং ধোঁয়াশার জন্য অন্যতম প্রধান কারণ।