এবার ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে পাকিস্তানের বিমান হামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

বালাকোটে ভারতীয় বিমান বাহিনীর হামলার জবাবে ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে বিমান হামলা চালিয়েছে পাকিস্তান। গতকাল বুধবার পাকিস্তানের আকাশসীমার মধ্য থেকেই এই হামলা চালানো হয় বলে ইসলামাবাদ দাবি করেছে। একইসঙ্গে পাকিস্তান দাবি করেছে যে, আকাশসীমা লঙ্ঘনের পর ভারতের দুটি যুদ্ধবিমানকে তারা ভূপাতিত করেছে। একটি বিমান পাকিস্তান নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে পড়েছে এবং এক পাইলটকে আটক করা হয়েছে। অন্য বিমানটি ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরের সীমানায় পড়েছে। তবে পাকিস্তানের এই দাবি নাকচ করে ভারত বলেছে, পাকিস্তানি বিমান আকাশসীমা লঙ্ঘন করার চেষ্টা করলে ভারতীয় বিমান বাহিনী তাদের তাড়া করে। আকাশপথে যুদ্ধে পাকিস্তানের একটি বিমান ভূপাতিত হয়েছে। তবে এই অপারেশনে একটি মিগ-২১ বিমান হারিয়েছে ভারত। বিমানের পাইলট পাকিস্তানে আটক হয়েছে স্বীকার করে তার দ্রুত নিরাপদ প্রত্যাবর্তন চেয়েছে ভারত। এদিকে ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরের বাদগামে একটি হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে ভারতীয় বিমান বাহিনীর ছয় কর্মকর্তা ও এক বেসামরিক লোক নিহত হয়েছেন।


বিমান থেকে হামলার পাশাপাশি গতকাল বুধবারও ভারত-পাকিস্তানের নিয়ন্ত্রণরেখায় দুই পক্ষের মধ্যে গোলাগুলি ও মর্টার শেল নিক্ষেপের ঘটনা ঘটেছে। ভারতীয় গোলার আঘাতে পাকিস্তানের তিনজন নারী ও একটি শিশু মারা গেছে। আহত হয়েছেন ১১ জন। আর পাকিস্তানি বাহিনীর ছোঁড়া গোলায় ১১ ভারতীয় সেনা আহত হয়েছেন। উত্তেজনা বাড়তে থাকায় দুই দেশের নিয়ন্ত্রণরেখার কাছাকাছি এলাকা থেকে সাধারণ মানুষরা পালিয়ে যাচ্ছেন। এদিকে উত্তেজনাকে কেন্দ্র করে পাকিস্তানের সব বাণিজ্যিক ফ্লাইট চলাচল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। উত্তর ভারতের নয়টি বিমানবন্দরের কার্যক্রমও সাময়িক বন্ধ করে দেওয়া হয়।

সামরিক উত্তেজনা প্রশমনে ভারতকে আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। অন্যদিকে পাকিস্তানের বিমান হামলার দাবির পর নৌ ও বিমান বাহিনীর প্রধানদের সঙ্গে জরুরি বৈঠক করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। দিল্লির নর্থ ব্লকে দেশের গোয়েন্দা সংস্থার প্রধানদের সঙ্গে জরুরি বৈঠক করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং।

বর্তমান পরিস্থিতিতে দুই দেশকে শান্ত থাকার আহবান জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। একইসঙ্গে জঙ্গিদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নিতে ইসলামাবাদের প্রতি আহবান জানিয়েছে ওয়াশিংটন। আর চীন সফররত ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ বলেছেন, আত্মরক্ষার্থেই বালাকোটে জঙ্গি ঘাঁটিতে বোমা হামলা করেছে ভারত। পরিস্থিতির অবনতি হোক সেটা কখনোই ভারত চায় না। ভারত আগের মতোই দায়িত্বশীল এবং সংযত ভূমিকা পালন করবে।

প্রসঙ্গত, গত ১৪ ফেব্রুয়ারি ভারত-শাসিত কাশ্মীরের পুলওয়ামায় কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বাহিনীর একটি বহরে জঙ্গি হামলায় ৪০ জনের বেশি সিআরপিএফ সদস্য নিহত হয়। পাকিস্তানভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই-মোহাম্মদ এই হামলার দায় স্বীকার করে। এরপরই পাকিস্তানকে কড়া জবাব দেওয়ার দাবি ওঠে ভারতের বিভিন্ন মহল থেকে। ওই হামলার জবাব হিসেবে গত মঙ্গলবার রাতে পাকিস্তানের বালাকোটে জইশ-ই-মোহাম্মদের ঘাঁটিতে বিমান হামলা চালায় ভারতের বিমান বাহিনী। ভারতের দাবি এই হামলায় তিনশোর বেশি জঙ্গি নিহত হয়েছে। তবে পাকিস্তান সে দাবি প্রত্যাখ্যান করে পাল্টা জবাব দেওয়ার হুমকি দেয়।

কাশ্মিরে হামলা ও ভারতীয় বিমান ভূপাতিত করার দাবি পাকিস্তানের

ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে বেসামরিক হামলা চালালোর দাবি করেছে পাকিস্তান। দেশটির আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ দফতরের (আইএসপিআর) মহাপরিচালক মেজর জেনারেল আসিফ গফুর বলেন, পাকিস্তান বিমান বাহিনী ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে বিমান হামলা চালিয়েছে। হামলার পাশাপাশি তাদের বিমান বাহিনী ভারতীয় দুটি যুদ্ধ বিমানকে ভূপাতিত করেছে এবং একজন ভারতীয় পাইলটকে গ্রেফতার করেছে। সংবাদ সংস্থা পিটিআই এবং রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, ভারত শাসিত কাশ্মীরের রাজৌরি জেলায় নওশেরা সেক্টরে কয়েকটি পাকিস্তানি যুদ্ধ বিমান থেকে বোমা নিক্ষেপ করা হয়।

মেজর জেনারেল আসিফ গফুর টুইট করে জানান, বুধবার সকালে ভারতে বোমাবর্ষণের পরে দুটি ভারতীয় বিমান নিয়ন্ত্রণ রেখা পেরিয়ে পাকিস্তানি আকাশসীমায় ঢুকে পড়ে। ওই দুটি বিমানকে গুলি করে ভূপাতিত করা হয়েছে। একটি বিমান পাকিস্তান শাসিত এলাকায় ভেঙ্গে পড়ে, অন্যটি ভূপাতিত হয়েছে ভারত অধ্যুষিত এলাকায়। পাকিস্তানে বিবিসির একজন সংবাদদাতা নিশ্চিত করেছেন যে, পাকিস্তানের সীমান্তের ভেতরে একটি ভারতীয় যুদ্ধ বিমান বিধ্বস্ত হয়েছে।

পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, পাকিস্তানের আকাশসীমার মধ্য থেকেই বুধবার লাইন অব কন্ট্রোলের অন্যপাশে আক্রমণ চালিয়েছে পাকিস্তান বিমান বাহিনী। মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ড. মুহম্মদ ফয়সাল বলেন, পাকিস্তানের বিমান বাহিনী নিজেদের সীমানার মধ্যে থেকেই নিয়ন্ত্রণ রেখার অন্যদিকে বোমা ফেলেছে। ভারত যা করেছে, এটা তার জবাব নয়। এক্ষেত্রে বেসামরিক এলাকাকে টার্গেট করা হয়। এটাও খেয়াল রাখা হয় যাতে জানমালের ক্ষতি না হয়। তিনি বলেন, উত্তেজনা আরো বৃদ্ধি হোক সেটা পাকিস্তান চায় না। কিন্তু যদি সে পথেই যেতে বাধ্য করা হয়, তাহলে যে পাকিস্তানি বাহিনী সম্পূর্ণ প্রস্তুত, তা প্রমাণ করতেই দিনের আলোয় এই অপারেশন চালানো হয়েছে। তবে ভারতীয় কর্মকর্তাদের সূত্র উদ্ধৃত করে বার্তা সংস্থা রয়টার্স বলছে, তিনটি পাকিস্তানি যুদ্ধ বিমান ভারত শাসিত কাশ্মীরের আকাশ সীমায় ঢুকে পড়েছিল।

পাকিস্তানের বিমান ভূপাতিত হয়েছে, পাইলটের দ্রুত প্রত্যাবর্তন চায় ভারত

ভারতের অভ্যন্তরে বিমান হামলা ও দুটি ভারতীয় যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করার বিষয়ে ইসলামাবাদের দাবি নাকচ করে নয়াদিল্লি। ভারত বলেছে, পাকিস্তানের একটি বিমান ভূপাতিত করেছে ভারতের বিমান বাহিনী। গতকাল ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বালাকোটে জঙ্গি ঘাঁটিতে অভিযানের জবাব দিতে পাকিস্তান ভারতের সামরিক স্থাপনা লক্ষ্যবস্তু করে। তবে বুধবার সকালে ভারতীয় বিমান বাহিনী তাত্ক্ষণিকভাবে জবাব দিয়েছে এবং তাদের হামলা প্রতিহত করেছে। আকাশপথে যুদ্ধে ভারতের মিগ-২১ বিমানের হামলায় একটি পাকিস্তানি বিমান পাকিস্তান নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে ভূপাতিত হয়েছে। তবে দুর্ভাগ্যজনকভাবে ওই অপারেশনে একটি মিগ-২১ বিমান হারিয়েছে ভারত। ভারতের একজন পাইলটও নিখোঁজ রয়েছেন। পাকিস্তান দাবি করেছে যে, তারা একজন পাইলটকে আটক করেছে। আমরা বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার চেষ্টা করছি। এর কয়েক ঘণ্টা পর ভারতে নিযুক্ত পাকিস্তানের ভারপ্রাপ্ত হাইকমিশনারকে তলব করে ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। বিনা উস্কানিতে ভারতের বিরুদ্ধে পাকিস্তানের আগ্রাসী কাজের কড়া প্রতিবাদ জানিয়েছে নয়াদিল্লি। একইসঙ্গে বলেছে, একজন আহত বিমান বাহিনীর কর্মকর্তাকে আটকের বিষয়টি পাকিস্তান অমার্জিতভাবে প্রচার করেছে যা জেনেভা কনভেনশনের লঙ্ঘন। ভারত ওই পাইলটের নিরাপদ প্রত্যাবর্তন আশা করছে। ভারত বলেছে, জাতীয় নিরাপত্তা ও সার্বভৌমত্ব নিশ্চিতে আন্তঃসীমান্ত জঙ্গিদের বিরুদ্ধে যেকোন দৃঢ় পদক্ষেপ নেওয়ার অধিকার ভারতের রয়েছে।

কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণ রেখায় সংঘর্ষে নিহত ৪

কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণ রেখা বা লাইন অফ কন্ট্রোল বরাবর ভারত আর পাকিস্তানি বাহিনীর মঙ্গলবারের পর গতকালও ব্যাপক গোলাগুলি হয়েছে। ভারতীয় গোলার আঘাতে পাকিস্তানের চারজন নিহত হয়েছে। অন্যদিকে পাকিস্তানি বাহিনীর ছোঁড়া গোলায় ১১ ভারতীয় সেনা আহত হয়েছেন। নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছে পাকিস্তান। ওই এলাকার বেসামরিক নাগরিকদের নিয়ন্ত্রণ রেখা থেকে দূরে থাকতে বলা হয়েছে। নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছাকাছি সব সরকারী স্কুল কলেজ বন্ধ করে দিয়েছে পাকিস্তান প্রশাসন। অন্যদিকে ভারতের দিকেও পুঞ্চ এবং রাজৌরি জেলায় নিয়ন্ত্রণ রেখার পাঁচ কিলোমিটার পর্যন্ত এলাকায় সব স্কুল পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। উত্তর কাশ্মীরের উরি সেক্টরে নিয়ন্ত্রণ রেখার দুই দিক থেকেই ব্যাপক গোলাগুলি চলার খবর পাওয়া যাচ্ছে। এদিকে সোফিয়ানে সন্দেহভাজন জইশ-ই-মোহম্মদ সদস্যদের সঙ্গে নিরাপত্তাবাহিনীর একটি এনকাউন্টার হয়েছে দুই জন জঙ্গী মারা গেছেন।

আলোচনার মাধ্যমে শান্তি প্রতিষ্ঠার আহবান ইমরান খানের

চলমান উত্তেজনার মধ্যে আলোচনায় বসার প্রস্তাব দিয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। জাতির উদ্দেশ্যে দেওয়া ভাষণে পাকিস্তানের পাল্টা হামলার পক্ষে সাফাই দিয়ে ইমরান খান বলেছেন, আমরা ভারতকে বলেছিলাম যে, তোমরা যদি একতরফা কোন ব্যবস্থা নাও, তাহলে আমরা জবাব দিতে বাধ্য হবো। কিন্তু ভারত নিজেরাই বিচারক, জুরি আর জল্লাদের ভূমিকা নিয়েছে। কিন্তু এরপর আমরা কোথায় যাবো? আমি ভারতকে প্রশ্ন করছি। আমাদের অবশ্যই দায়িত্বশীল হতে হবে। কারণ দুই পক্ষের হাতে যে ধরনের অস্ত্র আছে তা নিয়ে কোন পক্ষেরই ভুল হিসেবের সুযোগ নেই। সেকারণে আমি ভারতের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি যেন শুভ বুদ্ধির উদয় হয়। ইমরান বলেন, পুলওয়ামার ঘটনার পর আমরা ভারতকে শান্তি আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছিলাম। নিজেদের ভূমিকে জঙ্গিবাদের জন্য ব্যবহার হতে দেওয়াটা পাকিস্তানের স্বার্থের সঙ্গে যায় না। জঙ্গিবাদ প্রশ্নে যেকোনও আলোচনায় আমরা প্রস্তুত।

সামরিক বাহিনীর প্রধানদের সঙ্গে জরুরি বৈঠক মোদীর

কাশ্মিরে পাকিস্তানের বিমান বাহিনীর হামলার দাবির পর গতকাল সকালে নৌ ও বিমান বাহিনীর প্রধানদের সঙ্গে জরুরি বৈঠকে বসেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এর আগে নিজের বাড়িতেও একটি জরুরি বৈঠক ডেকেছিলেন প্রধানমন্ত্রী। সেই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল, পররাষ্ট্র সচিব বিজয় গোখেল, বিমান বাহিনী প্রধান-সহ দেশের অন্যান্য বাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তারাও। এ বৈঠকের পরপরই জম্মু ও কাশ্মীর এবং পঞ্জাবের সমস্ত বিমানবন্দর বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় নয়াদিল্লি। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক ফ্লাইট এই এলাকার বিমানবন্দরে না নামিয়ে ঘুরিয়ে দেওয়া হচ্ছিলো দেশের অন্যান্য নিরাপদ বিমানবন্দর দিয়ে।

একই সঙ্গে সকালেই নর্থ ব্লকে উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে বসেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ। সেই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন দেশের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল, গোয়েন্দা সংস্থা রিসার্চ অ্যান্ড অ্যানালিসিস উইং (র) প্রধান, স্বরাষ্ট্রসচিব সব প্রতিরক্ষা দফতরের গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তারা। এই বৈঠকেই বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্সকে ভারত-পাক সীমান্ত এলাকায় সর্বোচ্চ পর্যায়ের সতর্ক থাকার নির্দেশ দেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

উত্তেজনা পরিহার করে পাকিস্তানকে জঙ্গিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আহবান যুক্তরাষ্ট্রের

চলমান উত্তেজনা এড়াতে সংযম প্রদর্শনের জন্য ভারত ও পাকিস্তনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। গতকাল বুধবার এক বিবৃতিতে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও বলেন, ভারত ও পাকিস্তান উভয় দেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রীদের সঙ্গে কথা হয়েছে। আলাপকালে উত্তেজনা কমাতে দুই দেশের মধ্যে সরাসরি আলোচনার ওপর জোর দেওয়া হয়েছে। পাকিস্তানকে সেদেশের জঙ্গিদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়ার আহবান জানিয়েছেন পম্পেও।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের কূটনৈতিক প্রধান ফেডেরিকা মোঘেরিনি উত্তেজনা কমাতে দুই দেশকে সর্বোচ্চ সংযম দেকানোর আহবান জানিয়েছেন। এর আগে চীনও দুই দেশকে নিয়ন্ত্রণমূলক পদক্ষেপ নেওয়াও আহবান জানায়।