বিশাল রেকর্ড গড়ে থামলো নিউজিল্যান্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

বাংলাদেশি বোলারদের একেবারে তুলোধুনো করে ছাড়ল নিউজিল্যান্ডের ব্যাটসম্যানরা। শনিবার কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন টেস্ট ক্যারিয়ারে দ্বিতীয়বারের মতো ডাবল সেঞ্চুরি করলেন। সেই সাথে নিউজিল্যান্ডও তাদের দলীয় সেরা স্কোর সংগ্রহ করল। কিউইরা ইনিংস ঘোষণা করল ৬ উইকেটে ৭১৫ রান সংগ্রহ করে। টেস্টে নিউজিল্যান্ডের এটি দলীয় সেরা স্কোর। এর আগে তাদের সেরা স্কোর ছিল ৬৯০ রান।
প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ সংগ্রহ করেছিল ২৩৪ রান। অর্থাৎ, ৪৮১ রানের লিড নিয়ে ইনিংস ঘোষণা করেছে কিউইরা। এখন ম্যাচ বাঁচানোই বাংলাদেশের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়াল। ম্যাচে আজ চলছে তৃতীয় দিনের খেলা।
গতকাল ম্যাচের দ্বিতীয় দিন ৪ উইকেটে ৪৫১ রান সংগ্রহ করে দিনের খেলা শেষ করেছিল নিউজিল্যান্ড। ব্যক্তিগত ৯৩ রানে অপরাজিত ছিলেন কেন উইলিয়ামসন। আজ তিনি ২০০ রান করে অপরাজিত থাকেন। টেস্টে উইলিয়ামসনের এটি ২০তম সেঞ্চুরি। উইলিয়ামসনের সঙ্গে ৫৩ বলে ৭৬ রান করে অপরাজিত থাকেন কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম। ৩৫ বলে ৪৭ রান করে আউট হন নেইল ওয়াগনার।

এর আগে জিত রাভাল ১৩২ ও টম লাথাম ১৬১ রান করেন। ৫৩ রান করেন হেনরি নিকোলস। বাংলাদেশের বোলারদের মধ্যে ইবাদত হোসেন ১টি, সৌম্য সরকার ২টি, মেহেদী হাসান মিরাজ ২টি ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ১টি করে উইকেট শিকার করেন।

হ্যামিলটনের সিডন পার্কে গত বৃহস্পতিবার শুরু হয়েছে বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচ। বৃহস্পতিবার টস হেরে ব্যাট করতে নামে বাংলাদেশ। প্রথম ইনিংসে ২৩৪ রান সংগ্রহ করে অলআউট হয়ে যায় টাইগাররা। প্রথম দিনই নিউজিল্যান্ড তাদের প্রথম ইনিংসের ব্যাট করতে নামে। শুক্রবারও পুরো দিন ব্যাট করে কিউইরা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

প্রথম ইনিংস শেষে ৪৮১ রানের লিডে নিউজিল্যান্ড।

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস: ২৩৪ (৫৯.২ ওভার)

(তামিম ইকবাল ১২৬, সাদমান ইসলাম ২৪, মুমিনুল হক ১২, মোহাম্মদ মিথুন ৮, সৌম্য সরকার ১, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ২২, লিটন দাস ২৯, মেহেদী হাসান মিরাজ ১০, আবু জায়েদ রাহি ২, খালেদ আহমেদ ০, ইবাদত হোসেন ০*; ট্রেন্ট বোল্ট ১/৬২, টিম সাউদি ৩/৭৬, কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম ১/৩৯, নেইল ওয়াগনার ৫/৪৭, টড অ্যাস্টল ০/১০)।

নিউজিল্যান্ড প্রথম ইনিংস: ৭১৫/৬ডি (১৬৩ ওভার)

(জিত রাভাল ১৩২, টম লাথাম ১৬১, কেন উইলিয়ামসন ২০০*, রস টেইলর ৪, হেনরি নিকোলস ৫৩, নেইল ওয়াগনার ৪৭, বিজে ওয়াটলিং ৩১, কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম ৭৬*; আবু জায়েদ রাহি ০/১০৩, ইবাদত হোসেন ১/১০৭, খালেদ আহমেদ ০/১৪৯, সৌম্য সরকার ২/৬৮, মেহেদী হাসান মিরাজ ২/২৪৬, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ১/৩, মুমিনুল হক ০/৩২)।