পাকিস্তানে হামলায় আড়াইশ’র বেশি জঙ্গি নিহত হয়েছে : অমিত শাহ

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির সভাপতি অমিত শাহ বলেছেন, পাকিস্তানের বালাকোটে বিমান হামলায় আড়াইশ’র বেশি জঙ্গি নিহত হয়েছে। তবে ভারতের বিমান বাহিনীর প্রধান জানিয়েছেন, আমরা হামলা করি, কিন্তু নিহতের সংখ্যা গুনি না। এদিকে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, তিনি নোবেল শান্তি পুরস্কার পাওয়ার যোগ্য না।


বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ নিজেই রবিবার আমদাবাদে জানিয়েছেন হামলায় নিহত জঙ্গির সংখ্যাটা। তার কথায়, পুলওয়ামায় হামলার পরে সবাই ভেবেছিল, এই সময় সার্জিকাল স্ট্রাইক করা যাবে না। এবার কী হবে? তখনই মোদী সরকার ১৩ দিনের মাথায় বিমান বাহিনী অভিযান চালিয়ে ২৫০ এর বেশি জঙ্গিকে মেরেছে।

বালাকোটে হামলার ৫ দিন পর মুখ খুলল ভারতীয় বিমান বাহিনী। সরকারের কোর্টে বল ঠেলে দিয়ে বিমান বাহিনীর প্রধান এয়ার চিফ মার্শাল বীরেন্দ্র সিংহ ধনোয়ার দাবি, যে লক্ষ্য ছিল তাতে নিখুঁত আঘাত হানতে সক্ষম হয়েছেন তারা। গতকাল সোমবার সাংবাদিক বৈঠক করেন এয়ার চিফ মার্শাল বি এস ধনোয়া। বিমান বাহিনীর যুদ্ধবিমান ও অন্যান্য প্রযুক্তিগত উন্নয়ন নিয়ে সাংবাদিক বৈঠক হলেও স্বাভাবিকভাবেই উঠে আসে ২৬ ফেব্রুয়ারি হামলার প্রসঙ্গ। হামলায় কত জঙ্গির মৃত্যু হয়েছে এই প্রশ্নে ধানোয়ার জবাব, আমরা মৃতদেহ গুণে দেখি না। শুধু দেখা হয়, নির্দিষ্ট করে দেওয়া লক্ষ্যমাত্রায় নিখুঁত হামলা করা সম্ভব হয়েছে কি না। সেদিক থেকে এই অভিযান সফল। আমরা নির্দিষ্ট লক্ষ্যমাত্রায় আঘাত হানতে পেরেছি। তবে কত জনের মৃত্যু হয়েছে বা কতজন আহত হয়েছে সে বিষয়ে সরকার তথ্য দিতে পারবে।

নোবেল পুরস্কারের যোগ্য না : ইমরান

ভারতীয় বিমান বাহিনীর উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানকে ভারতে ফেরত পাঠানোর সিদ্ধান্তের পরই ইমরান অনুগামীদের উচ্ছ্বাসের অন্ত নেই। ইমরান খানকে নোবেল শান্তি পুরস্কার দেওয়ার দাবি শুধু নয় রীতিমতো পাকিস্তান পার্লামেন্টে প্রস্তাব আনা হয়েছে। সেই বিতর্কে এবার ইমরান নিজেই মুখ খুলেছেন। তিনি বলেছেন, আমি নই, যিনি শান্তি প্রক্রিয়ার প্রথম পদক্ষেপ করেছিলেন তিনিই নোবেল শান্তি পুরস্কার পাওয়ার দাবিদার। ধারণা করা হচ্ছে তিনি তথ্যমন্ত্রী ফাওয়াদের কথা বলছেন। কারণ তথ্যমন্ত্রীই প্রথম অভিনন্দনকে ভারতের কাছে হস্তান্তরের প্রস্তাব তুলেছিলেন।