ফারমার্স ব্যাংকের ৯ কর্মকর্তাকে দুদকের জিজ্ঞাসাবাদ

নিজস্ব প্রতিবেদক | র‍্যাপিড পিআর নিউজ.কম

ফারমার্স ব্যাংকে (বর্তমানে পদ্মা ব্যাংক) জালিয়াতির মাধ্যমে ঋণের নামে অন্তত ১০০ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ অনুসন্ধানের অংশ হিসেবে ব্যাংকটির ৯ কর্মকর্তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।


বুধবার দুদকের উপপরিচালক মো. সামসুল আলম ও সহকারী পরিচালক মোহাম্মদ জয়নুল আবেদীনের নেতৃত্বে একটি টিম তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করে। এর আগে সোমবার তাদের তলব করে চিঠি পাঠিয়েছিলেন দুদকের উপপরিচালক সামছুল আলম।

বুধবার যাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে তাদের মধ্যে রয়েছেন প্রধান কার্যালয়ের কর্পোরেট ব্যাংকিং ডিভিশনের এসভিপি অলক কুমার বিশ্বাস, হেড অব এইচআরডি রিতা সেন, সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট শাহজাহান আমিন এবং গুলশান শাখার হেড অব সিএডি আশীষ কুমার লস্কর।

এছাড়া ব্যাংকটির শেরপুর শাখার ৫ কর্মকর্তাকেও তলব করা হয়েছে। তারা হলেন অপারেশন্স ম্যানেজার এডিএম সোলাইমান, ক্রেডিট অফিসার কামরুল ইসলাম, ইমাম হোসাইন, মো. আবদুল্লাহ ও ট্রেইনি অ্যাসিস্টেন্ট অফিসার মো. আবু নাঈম। দুদক সূত্রে জানা গেছে, হযরত আলী নামে শেরপুরের এক ব্যবসায়ী ফারমার্স ব্যাংক থেকে ১০০ কোটি টাকার ঋণ নেন। এ ঋণের বিপরীতে যে জমির কাগজপত্র দেন, তার অধিকাংশই নকল।


তার ব্যবসায়িক সিআইবি রিপোর্টও ভালো ছিল না। তার কাছ থেকে সুবিধা নিয়ে অনৈতিকভাবে এ ঋণ পাইয়ে দেয়ার ব্যবস্থা করেন ব্যাংকের কর্মকর্তারা। তাদের মধ্যে ফারমার্স ব্যাংকের অডিট কমিটির সাবেক চেয়ারম্যান মাহবুবুল আলম চিশতিও রয়েছেন। তাকেও এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। ঋণগ্রহীতা হযরত আলী কৃষি ব্যাংকের অপর একটি ঋণ জালিয়াতির মামলায় বর্তমানে জেলে আছেন।