spot_img
spot_img

শনিবার, ২১ মে ২০২২, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, সন্ধ্যা ৬:১১

সর্বশেষ
বাগমারা প্রেসক্লাবের সভাপতি ষড়যন্ত্রমূলক মামলায় গ্রেফতার, দ্রুত মুক্তির দাবি মহাসড়কে দুর্ঘটনা রোধে অতিরিক্ত গতির গাড়ির বিরুদ্ধে তৎপর হাইওয়ে পুলিশ মহাসড়কে দুর্ঘটনা প্রতিরোধে হেলমেট পরিধানে উদ্বুদ্ধ করছে হাইওয়ে পুলিশ খুলনায় বিএনপির মানববন্ধনে পুলিশের লাঠিচার্জ বাগেরহাটে র‌্যাবের ভেজাল বিরোধী অভিযান, তিন প্রতিষ্ঠানকে ৭৫ হাজার টাকা জরিমানা ইসলামী ব্যাংক ও পার্কভিউ হসপিটাল-এর মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লিঃ ও বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ড-এর মধ্যে ‘মোবাইল ফোনের মাধ্যমে প্রিপেইড মিটারের বিল প্রদান’ বিষয়ক চুক্তি স্বাক্ষর
প্রচ্ছদঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জশুরুর উত্থান ধরে রাখতে পারল না সূচক

শুরুর উত্থান ধরে রাখতে পারল না সূচক

গতকাল সকালে ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় লেনদেন শুরু হয় দেশের পুঁজিবাজারে। দুপুর সোয়া ১২টা পর্যন্ত ৩০ পয়েন্ট যোগ হয় সূচকে। তবে এর পরেই ছন্দপতন ঘটে পুঁজিবাজারে। শেয়ার বিক্রির চাপ বাড়তে থাকায় পয়েন্ট হারাতে থাকে সূচক। দিনশেষে দশমিক ৮৭ শতাংশ পয়েন্ট হারায় ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স। পাশাপাশি কমেছে দৈনিক গড় লেনদেনও। দেশের আরেক পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জেও (সিএসই) গতকাল সূচক ও লেনদেন কমেছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, দিনের শুরুতেই ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় লেনদেন শুরু হয়। তবে ২ মিনিট পরেই কিছুটা নিম্নমুখিতা দেখা যায় পুঁজিবাজারে। সকাল ১০টা ২০ মিনিটের পর থেকেই সূচক ঊর্ধ্বমুখী হওয়া শুরু করে এবং দুপুর সোয়া ১২টায় ৭ হাজার ৯০ পয়েন্টে উঠে যায়। এর পর থেকেই শেয়ার বিক্রির চাপ বাড়তে থাকে এবং শেষ পর্যন্ত বড় পতনে লেনদেন শেষ হয়। ডিএসইএক্স সূচক গতকাল ৬১ পয়েন্ট কমে ৭ হাজার দশমিক ৯৫ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে, যা এর আগের কার্যদিবসে ছিল ৭ হাজার ৬২ দশমিক ৩৬ পয়েন্টে। গতকাল সূচকের পতনে সবচেয়ে বেশি অবদান রেখেছে ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো বাংলাদেশ কোম্পানি (বিএটিবিসি) লিমিটেড, লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশ, ফরচুন সুজ, কনফিডেন্স সিমেন্ট, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স ও বেক্সিমকো।

ডিএসইর শরিয়াহ সূচক ডিএসইএস গতকাল দিনশেষে ৮ দশমিক ৯০ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৪৭০ দশমিক ৫০ পয়েন্টে অবস্থান করছে, যা আগের দিন ছিল ১ হাজার ৪৭৯ দশমিক ৩৯ পয়েন্টে। ব্লু-চিপ সূচক ডিএস-৩০ দিনের ব্যবধানে ১৮ দশমিক ৩১ পয়েন্ট কমে গতকাল ২ হাজার ৬২০ দশমিক ৬০ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে, আগের দিন শেষে যা ছিল ২ হাজার ৬৩৮ দশমিক ৯১ পয়েন্টে।

গতকাল ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৬৩৭ কোটি টাকা। এর আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ১ হাজার ৭২৪ কোটি টাকা। এদিন ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩৭৫টি কোম্পানি, মিউচুয়াল ফান্ড ও করপোরেট বন্ডের মধ্যে দিনশেষে দর বেড়েছে ১২২টির, কমেছে ২২৬টির আর অপরিবর্তিত ছিল ২৭টি সিকিউরিটিজের বাজারদর।

খাতভিত্তিক লেনদেনচিত্রে দেখা যায়, গতকাল ডিএসইর মোট লেনদেনের ১৯ দশমিক ৩৪ শতাংশ দখলে নিয়ে শীর্ষে অবস্থান করছে বস্ত্র খাত। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১৫ দশমিক ১৩ শতাংশ দখলে নিয়েছে ব্যাংক খাত। ৯ দশমিক ১৯ শতাংশ লেনদেনের ভিত্তিতে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে ওষুধ ও রসায়ন খাত। ৮ দশমিক ৬৪ শতাংশ লেনদেনের ভিত্তিতে চতুর্থ অবস্থানে ছিল বিবিধ খাত। এছাড়া প্রকৌশল খাত ৭ দশমিক শূন্য ৪ শতাংশ লেনদেন নিয়ে পরের অবস্থানে ছিল।

দেশের আরেক পুঁজিবাজার সিএসইতে গতকাল সিএসসিএক্স সূচক দিনের ব্যবধানে ৮৭ পয়েন্ট কমে ১২ হাজার ৩০৫ পয়েন্টে অবস্থান করছে। আগের কার্যদিবসে সূচকটির অবস্থান ছিল ১২ হাজার ৩৯২ পয়েন্টে। এদিন এক্সচেঞ্জটিতে লেনদেন হওয়া ২৯৯টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১০১টির, কমেছে ১৭৪টির আর অপরিবর্তিত ছিল ২৪টির বাজারদর। গতকাল সিএসইতে মোট ৫৬ কোটি টাকার সিকিউরিটিজ হাতবদল হয়েছে, আগের কার্যদিবসে যা ছিল ৬৩ কোটি টাকা।

মন্তব্য করুন:

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন

spot_img
spot_img
spot_img

সর্বাধিক পঠিত