spot_img
spot_img

মঙ্গলবার, ৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯, রাত ৪:০৯

প্রচ্ছদঅন্যান্যভারতেও প্রশ্নফাঁসে জড়িত কোচিং সেন্টার

ভারতেও প্রশ্নফাঁসে জড়িত কোচিং সেন্টার

পাবলিক পরীক্ষা মানেই প্রশ্নপত্র ফাঁস। বাংলাদেশে গেলো কয়েক বছর ধরে এটি যেন রীতিতে পরিণত হয়েছে। কিন্তু ধীরে ধীরে জাতে উঠতে থাকা ভারতেও যে প্রশ্নপত্র ফাঁস হয় এবং এতো ব্যাপক মাত্রায়, সেটাই সবাইকে অবাক করে দিয়েছে।
বাংলাদেশে গেলো বছর প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ে চারটি পাবলিক পরীক্ষায়ই প্রশ্নপত্র ফাঁসের অভিযোগ ওঠে। আর সেগুলোর সঙ্গে নাম জড়ায় বিভিন্ন কোচিং সেন্টারের। এমনকি আগামী ২ এপ্রিল থেকে শুরু হতে যাওয়া উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষাকে সামনে রেখে গেলো ২৯ মার্চ থেকে বাংলাদেশের সব কোচিং সেন্টার বন্ধ করে দেয়া হয়।
বাংলাদেশের মতো প্রশ্নফাঁসের ঘটনায় উত্তাল পাশের দেশ ভারত। সেখানেও প্রশ্নফাঁসে জড়িত হিসেবে নাম উঠে আসছে কোচিং সেন্টারের। অভিযোগ উঠেছে সেন্ট্রাল বোর্ড অব সেকেন্ডারি এক্সাম (সিবিএসই) পরীক্ষার আগেই প্রশ্নফাঁসের বিষয়টি জানতে পেরেছিল কর্তৃপক্ষ। কিন্তু তারপরও সময় মতো ব্যবস্থা নেয়া হয়নি।

বাংলাদেশে বিভিন্ন পাবলিক পরীক্ষায় যেভাবে প্রশ্নপত্র ফাঁস করা হয় ঠিক সেভাবেই ভারতেও প্রশ্নফাঁসের ঘটনা ঘটেছে। তবে সিবিএসই কর্তৃপক্ষ এ ব্যাপারে কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। পরে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া ওই প্রশ্ন শুরুর দিকে ৩৫ হাজার রুপিতে বিক্রি হয়। কিন্তু পরে ওই প্রশ্ন পাঁচ হাজার রুপিতেও পাওয়া যায়। গেলো ২৬ মার্চ দ্বাদশ শ্রেণির অর্থনীতি আর ২৮ মার্চ দশম শ্রেণির গণিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। অভিযোগ এই দুই পরীক্ষার প্রশ্নফাঁস হয়েছে।

এ ঘটনায় উত্তাল হয়ে উঠেছে ভারত। দেশজুড়ে বিক্ষোভ করছে শিক্ষার্থীরা। তারা পরীক্ষা বাতিলের দাবি জানিয়েছে। শিক্ষার্থীদের দাবির মুখে শেষ পর্যন্ত আগামী ২৫ এপ্রিল দ্বাদশ শ্রেণির অর্থনীতির পরীক্ষার নতুন তারিখ ঘোষণা করা হয়। যদিও দশম শ্রেণির গণিত পরীক্ষার ব্যাপারে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।
এদিকে প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঘটনায় আগুন লেগেছে রাজনীতির ময়দানেও। প্রধানমন্ত্রী মোদিকে এক হাত নিয়েছে প্রধান বিরোধী কংগ্রেসসহ অন্যান্য রাজনৈতিক দল। আর প্রশ্নফাঁস নিয়ে সরব হতে দেখা গেছে বলিউড তারকাদেরও।
অন্যদিকে প্রশ্নফাঁসের ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৬০ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে পুলিশ। এদের মধ্যে রয়েছে পশ্চিমদিল্লির বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও কোচিং সেন্টারের মালিক।

মন্তব্য করুন:

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন

spot_img
spot_img
spot_img

সর্বাধিক পঠিত