spot_img
spot_img

বৃহস্পতিবার, ৯ ডিসেম্বর ২০২১, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, রাত ৮:৪৬

প্রচ্ছদজনগণের ৬ হাজার কোটিরও বেশি টাকা যাচ্ছে বিদেশে
Array

জনগণের ৬ হাজার কোটিরও বেশি টাকা যাচ্ছে বিদেশে

বিদেশি প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে দেশের প্রায় আড়াই কোটি বিদ্যুৎ গ্রাহকের জন্য প্রি-পেইড মিটার কিনতে একেকটির দাম পড়ছে ৫ হাজার টাকা। অথচ, দেশে তৈরি হলে খরচ পড়তো মাত্র আড়াই হাজার টাকা। সেই হিসেবে, অতিরিক্ত খরচ হচ্ছে সোয়া ৬ হাজার কোটি টাকা।

বিদ্যুৎ বিতরণকারী সংস্থাগুলোর নিজস্ব অর্থায়নে এবং বুয়েটের সহযোগিতায় প্রথম প্রি-পেইড মিটারের সক্রিয় যাত্রা শুরু হয় ২০০৯-১০ সালে। প্রথম দিকে কিছু ত্রুটি থাকলেও পরে সমাধানের পথ দেয় বুয়েট। বুয়েটের প্রায় ২০ হাজার মিটার এখনও সচল থাকলেও কেনা হচ্ছে বিদেশি মিটার।

বিশেষ কোনো গোষ্ঠীকে সুবিধা দিতেই জনগণের টাকার এমন অপব্যবহার হচ্ছে বলে অভিযোগ করছেন বিশেষজ্ঞরা। তাদের মতে, জনগণের কাছে জবাবদিহিতার তোয়াক্কা না করায় এমন স্বেচ্ছাচারিতা হচ্ছে।

বিতরণকারী প্রতিষ্ঠানের দেয়া তথ্য অনুযায়ী, ডেসকো তাদের প্রায় সাড়ে ৮ লাখ গ্রাহক, ডিপিডিসির প্রায় ১৪ লাখ গ্রাহক ও পিডিবির প্রায় ২৫ লাখ গ্রাহকসহ দেশের আড়াই কোটি গ্রাহকের জন্য খরচ হচ্ছে সাড়ে ১২ হাজার কোটি টাকা। যার পুরোটাই যাবে জনগণের পকেট থেকে।

বুয়েটের অধ্যাপক এস এম লুৎফর কবির বলেন, আমাদের দেশে এসব মিটার তৈরি হলে একেকটির মূল্য অবশ্যই আড়াই হাজার থেকে তিন হাজারের মধ্যে থাকবে।

জ্বালানি বিশেষজ্ঞ শামছুল আলম বলেন, এখন সরকার বলে কোনো অস্তিত্ব নেই, ভোক্তার স্বার্থ বলে কোনো কথা নেই। তাই ব্যবসায়ী যা চাচ্ছে, তাই করে নিচ্ছে। 

তবে বিতরণকারী সংস্থাগুলো বলছে, মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে প্রক্রিয়া মেনেই সবকিছু করা হয়েছে। ডেসকো’র প্রধান প্রকৌশলী এ কে এম মহিউদ্দিন বলেন, আমরা টেলিফোন শিল্পসংস্থার মাধ্যমে বেশির ভাগ মিটার কিনছি।

ডিপিডিসি’র নির্বাহী পরিচালক(প্রকৌশল) মো. রমিজ উদ্দিন সরকার বলেন, আমরা টেন্ডারের মাধ্যমে দাম নির্ধারণ করি।

মন্তব্য করুন:

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন

spot_img
spot_img
spot_img

সর্বাধিক পঠিত