spot_img
spot_img

শনিবার, ২১ মে ২০২২, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, বিকাল ৫:৫৫

সর্বশেষ
বাগমারা প্রেসক্লাবের সভাপতি ষড়যন্ত্রমূলক মামলায় গ্রেফতার, দ্রুত মুক্তির দাবি মহাসড়কে দুর্ঘটনা রোধে অতিরিক্ত গতির গাড়ির বিরুদ্ধে তৎপর হাইওয়ে পুলিশ মহাসড়কে দুর্ঘটনা প্রতিরোধে হেলমেট পরিধানে উদ্বুদ্ধ করছে হাইওয়ে পুলিশ খুলনায় বিএনপির মানববন্ধনে পুলিশের লাঠিচার্জ বাগেরহাটে র‌্যাবের ভেজাল বিরোধী অভিযান, তিন প্রতিষ্ঠানকে ৭৫ হাজার টাকা জরিমানা ইসলামী ব্যাংক ও পার্কভিউ হসপিটাল-এর মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লিঃ ও বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ড-এর মধ্যে ‘মোবাইল ফোনের মাধ্যমে প্রিপেইড মিটারের বিল প্রদান’ বিষয়ক চুক্তি স্বাক্ষর
প্রচ্ছদশীর্ষ সংবাদভোট দিতে সময় লাগছে ২০ মিনিট ইভিএমে

ভোট দিতে সময় লাগছে ২০ মিনিট ইভিএমে





কুমিল্লার চান্দিনা পৌরসভা নির্বাচনে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট প্রদানে ভোটারদের বেশ ভোগান্তির মুখে পড়তে হচ্ছে। প্রতিটি ভোটের জন্য গড়ে ৫ মিনিঠ থেকে ২০ মিনিট সময় ব্যয় হচ্ছে। মাঠ পর্যায়ে ইভিএম নিয়ে ব্যপক প্রচারণা না থাকায় ভোট গ্রহণে দায়িত্বরতদের অনেকটা ত্যক্ত-বিরক্তও হতে হচ্ছে। শনিবার সকাল ১০টায় রারিরচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায় দুই ঘণ্টায় ভোট দিতে পেরেছেন মাত্র ২১ জন।

এর আগে সকাল ৮টায় সরেজমিনে গিয়ে চান্দিনা পৌরসভার বিশ্বাস সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে গিয়ে নারী ও পুরুষ ভোটারদের ব্যপক উপস্থিতি দেখা যায়। সকাল সাড়ে ৮টায় ৬নং কক্ষে গিয়ে দেখা যায় ৩০ মিনিটে ভোট দিতে পেরেছেন মাত্র ৫ জন। ভোট দিতে আসা স্থানীয় বিশ্বাস গ্রামের রেহেনা ও জোহরা বেগম জানান, জীবনে প্রথম এ পদ্ধতি দেখলাম। তাই ভোট দিতে দেরি হয়েছে। কেউ বাড়ি গিয়ে এ পদ্ধতি দেখিয়ে আসেনি।

একই চিত্র দেখা গেছে কেন্দ্রের অন্যান্য বুথেও। ভোটারদের অভিযোগ বাড়ি বাড়ি গিয়ে প্রার্থীদের লোকজন ইভিএম বিষয়ে তাদের ভোট দেয়ার পদ্ধতি না জানানোর কারণে ভোট দিতে দেরি হচ্ছ। ওই ভোটকেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার আতিক উল্লাহ জানান, ভোটকেন্দ্রে আমরা ইভিএম বিষয়ে ভোটারদের জন্য প্রদর্শনীর আয়োজন করেছিলাম। এতে অধিকাংশ ভোটার আসেনি। তাই ভোট প্রদানে আমাদেরকে ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে। উল্লেখ্য, এ পৌরসভায় ৯টি ওয়ার্ডে মোট ভোটার রয়েছেন ৩১ হাজার ৮৪৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১৫ হাজার ৬৭৮ এবং নারী ভোটার ১৬ হাজার ১৭০ জন।

বার্তা প্রেরক
মোঃ হান্নান শেখ
স্ট্যাফ রিপোর্টার







মন্তব্য করুন:

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন

spot_img
spot_img
spot_img

সর্বাধিক পঠিত